1. mdmohaiminul77@gmail.com : md mohaiminul : md mohaiminul
  2. bd2daynews20@gmail.com : admin :
  3. kamranahmed141@gmail.com : kamran ahmed : kamran ahmed
সর্বশেষ সংবাদ :
দৌলতপুর উপজেলা বাসীকে ঈদ-উল-আযহার শুভেচ্ছা জানিয়েছেন প্রকৌশলী মনিরুল ইসলাম ভাঙ্গা উপজেলার ১০ং কালামৃধা ইউনিয়ন বাসীকে ঈদ-উল-আযহার শুভেচ্ছা জানিয়েছেন মোঃ বাবুল মুন্সী  দৌলতপুরে মাসুদকে অস্ত্র মাদক দিয়ে ফাঁসানোর ফোন আলাপ ফাঁস থানায় জিডি জাগরণ সংবাদ এর প্রতিষ্ঠা বার্ষিকি পালিত প্রকাশিত সংবাদের প্রতিবাদ কুষ্টিয়ার দৌলতপুরে গাঁজা সহ মাদক সম্রাট মিন্টু আটক এ্যাডঃ সরওয়ার জাহান বাদশাহ্ কে মন্ত্রী হিসেবে দেখতে চায় দৌলতপুর উপজেলা বাসী সকল বাধা উপেক্ষা করে আওয়ামী লীগের নের্তৃত্বে এগিয়ে যাবে বাংলাদেশ___ প্রকৌশলী মনিরুল ইসলাম মনি দৌলতপুরে ইউপি সদস্যদের অভিযোগে ক্ষুব্ধ চেয়ারম্যান গত ২৪ ঘণ্টায় শনাক্ত ৩৮৬২ জনের, মৃত্যু ৫৩

দৌলতপুরে মাসুদকে অস্ত্র মাদক দিয়ে ফাঁসানোর ফোন আলাপ ফাঁস থানায় জিডি

  • আপডেট টাইমঃ বৃহস্পতিবার, ৩০ জুলাই, ২০২০
  • ৫ বার পঠিত

দৌলতপুর প্রতিনিধি: কুষ্টিয়া দৌলতপুর উপজেলার ফিলিপনগর ইউনিয়নের বাহেরমাদি পূর্ব পাড়া গ্রামারে সামছুদ্দিনের ছেলে মাসুদ দের বাড়িতে অস্ত্র ও মাদক রেখে ফাঁসানোর ফোন আলাপ ফাঁস হওয়ায় থানায় জিডি করেছে, আতষ্কে রয়েছে মাসুদ ও তার পরিবার।

মাসুদ দাবী তার নিজের এলাকার সান্নান নাপিত ও সাবউদ্দিন মাস্টারের ছেলে খোকন, আমার বাড়িতে অবৈধ অস্ত্র মাদক রেখে আইনশৃঙ্খলা বাহিনীকে ব্যবহার করে আমাকে আটক করে শেষ করে দেওয়ার পরিকল্পনা করেছে। এমন একটি ফোন আলাপ যোগাযোগ মাধ্যমে ছড়িয়ে পড়লে, বিভিন্ন যায়গা থেকে আমার কাছে ফোন আসে।

পরে আমি ও আমার পরিবারের লোকজন আতঙ্কিত হয়ে পড়ি। বিষয়টি তদন্ত করে দেখতে গিয়ে আর ২ টা ফোন আলাপ পাওয়া যায়, আইনশৃঙ্খলা বাহিনীকে ব্যবহার করে আমাকে ফাঁসানোর ফোন আলাফ দেখে আমি আতঙ্কে। এ জন্য থানায় জিডি করেছি, বিষয়টি ঘটনার তদন্ত করে বিচার দাবী জানাচ্ছি।

এ বিষয়ে সাহাবউদ্দিন মাস্টারে ছেলে সাহেদ খোকনের সাথে মুঠোফোনে যোগাযোগ করলে ফোন আলাফের বিষয়টা তিনি অস্বীকার করেন। তিনি বলেন আমি এই ঘটনার সাথে সম্পৃক্ত নয়।

এ বিষয়ে সান্নান নাপিতের কাছে জানতে চাইলে তিনি ঘটনার সত্যতা স্বীকার করে, বলে আমার বিরুদ্ধে মাসুদ অনেক আগে থেকে ষড়যন্ত্র করে আসছে। তাই আমি ও খোকন সহ তার ক্ষতি করবো প্রয়োজনে টাকাও খরচ করবো।

এলাকাবাসী জানায় তার কোন খারাপ কাজ বা ব্যবসা আমাদের চোখে পড়েনি, রেকডিং এর ঘটনাটি আমরা শুনেছি, ঘটনাটি অত্যন্ত দুঃখজনক টাকা থাকলেই যদি একজনকে অস্ত্র ও মাদক মামলায় ফাঁসানো যায় তাহলে তো আমরা কেউ নিরাপদ নই। তাই আইনশৃঙ্খলা বাহিনীর কাছে আবেদন বিষয়টি সুষ্ঠু তদন্ত করে আইনানুগ ব্যবস্থা গ্রহণ করা হোক।

দৌলতপুর থানা পুলিশ জানায়, এ বিষয়ে একটি জি ডি হয়েছে, আমরা তদন্ত করে আইনানুগ ব্যবস্থা গ্রহন করবো।

খবরটি শেয়ার করুন..

এ জাতীয় আরো খবর
BD 2 DAY NEWS এর প্রকাশিত/প্রচারিত কোনো সংবাদ, তথ্য, ছবি, আলোকচিত্র, রেখাচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা যাবে না।
Site Customized By NewsTech.Com